রাণীনগরে আখক্ষেতে পোকা ও লাল পঁচা রোগের আক্রমণ: কাজ হচ্ছেনা ঔষুধে-দৈনিক বাংলার অধিকার

0
63

সোহেল চৌধুরী রানা, নওগাঁ জেলা প্রতিনিধি: নওগাঁর রাণীনগরে আখক্ষেতে লাল পঁচা রোগ ও পোকার আক্রমনে মরে যাচ্ছে কৃষকের আখ।ঔষুধ ছিটিয়েও কাজ না হওয়ায় দিশে হারা হয়ে পরেছেন কৃষকরা।

জানাগেছে, রাণীনগর উপজেলার চকমনু গ্রামের মাঠে প্রায় শতাধিক বিঘা জমিতে আখ চাষ করা হয়েছে। এবার শুরুতেই আখের দাম ভাল থাকায় বেশ লাভবান হবেন এমনটি আশা করে ছিলেন চাষীরা।

চাষীদের আশা হত করে গত কয়েক দিন আগে থেকে আখক্ষেতে ব্যপক ভাবে পোকার আক্রমণ দেখা দেয়। পাশাপাশি লাল পঁচা রোগ ঝেকে বসে। এতে বিভিন্ন কোম্পানির ঔষুধ প্রয়োগ করেও কোন কাজ হচ্ছে না বলে জানান কৃষকরা।

কৃষকরা জানান, সামান্য লাল বর্ণ দেখার পরই চার থেকে পাঁচ দিনের মধ্যেই পুরো জমি আক্রান্ত হয়ে মরে যাচ্ছে সমস্ত আখ। এতে দিশে হারা হয়ে পরেছেন কৃষকরা।

চকমনু গ্রামের আখ চাষী খন্দকার আবদুস সালাম জানান, প্রায় ৩ বিঘা জমিতে আখের চাষ করেছি। এর মধ্যে অধিকাংশ জমির আখ পোকা ও লাল বর্ণ রোগে মরে গেছে।

ওই গ্রামের আরেক আখ চাষী আবুল কাশেম সরদার জানান, প্রায় আড়াই বিঘা জমিতে আখ চাষ করেছি। রাতা-রাতি এসব জমিতে পোকার আক্রমণ ও লাল হয়ে মরে যাচ্ছে।

বিভিন্ন কীটনাশক ঔষুধ ছিটিয়েও কোন লাভ হচ্ছে না। হঠাৎ করে এমন রোগের আক্রমণ দেখা দিলেও কৃষি অফিস থেকে তেমন কোন সহযোগিতা পাচ্ছেন না বলে অভিযোগ করেছেন তারা।

এ ব্যাপারে রাণীনগর উপজেরা কৃষি কর্মকর্তা শহিদুল ইসলাম বলেন, এবার রাণীনগর উপজেলায় ১০/১২ হেক্টর জমিতে আখ চাষ হয়েছে। বৃষ্টির কারণে জলা বদ্ধতা হওয়ায় এবং বীজ বাহিত রোগে লাল পচাঁ রোগ দেখা দিয়েছে।

যেহেতু আখ কর্তনের উর্পযুক্ত সময় শুরু হয়েছে সেহেতু খুব বেশি কৃষকের ক্ষতি হবে না জানিয়ে তিনি বলেন, যে সকল জমি আক্রান্ত হয়েছে সেগুলো দ্রুত কেটে সবজি চাষের পরামর্শ দেয়া হচ্ছে কৃষকদের।