নিজস্ব প্রতিবেদন, দৈনিক বাংলার অধিকারঃ হাজীগঞ্জে অত্যন্ত আনন্দঘন পরিবেশে শ্রীমদ্ভগবদগীতা গীতা পাঠ প্রতিযোগীদের মাঝে পুরস্কার ও সনদ বিতরণ সম্পন্ন হয়েছে।

জাতীয় পর্যায়ে শ্রীমদ্ভগবদগীতা গীতা পাঠ প্রতিযোগিতার অংশ হিসেবে শনিবার দুপুরে এ গীতা পাঠ প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ করা হয়।

হাজিগঞ্জ পৌর ৫নং ওয়ার্ড মকিমাবাদ বিশ্ব রোডস্থ শ্রী রামকৃষ্ণ সেবাশ্রম ও স্বামী বিবেকানন্দ বিদ্যাপীঠে অনুষ্ঠিত পুরস্কার বিতরণ ও আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি সুভাষ চন্দ্র রায়।
বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ উপজেলা শাখার আয়োজনে এবং ‘আপনার সন্তানকে গীতা শিক্ষা দিন, মানবতা ও দেশপ্রেমে উদ্বুদ্ধ করুন’ এই শ্লোগানকে সামনে রেখে উপজেলা পূজা উদযাপনের সভাপতি রোটারিয়ান ও সমাজসেবক রুহিদাস বণিকের সভাপতিত্বে পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সুভাষ চন্দ্র রায় বলেন, বাংলাদেশ সম্প্রদায় সম্প্রীতির দেশ।

এদেশে সকল ধর্ম, বর্ণ নির্বিশেষে সবার সাথে সবার সৌহাদ্যপূর্ণ সম্পর্ক রয়েছে।
অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সিনিয়র সহ-সভাপতি নরেন্দ্র নারায়ন চক্রবর্তী, জেলা জন্মাষ্টমী উদযাপন পরিষদের সভাপতি গোপাল চন্দ্র সাহা, উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক সমির লাল দত্ত প্রমুখ।

জাতীয় গীতা পাঠ প্রতিযোগিতা- ২০১৯ এর উপজেলা আহবায়ক নীহার রঞ্জন হালদারের মিলনের সঞ্চালনায় আলোচনা সভা ও গীতা পাঠ প্রতিযোগিতা এবং পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠানে তিনটি বিভাগে ১৭০ জন প্রতিযোগি অংশ গ্রহণ করে। এর মধ্যে ১১ জন বিজয়ীর মাঝে পুরস্কার ও সনদপত্র প্রদান করা হয়। তারা জেলা পর্যায়ে অংশ গ্রহণ করবে।

সেখানে উত্তীর্ণ হলে বিভাগীয় পর্যায়ে এবং জাতীয় পর্যায়ে অংশ গ্রহণ করার সুযোগ রয়েছে।
অনুষ্ঠানে অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন পৌরসভাধীন মহাশশ্মানের সভাপতি অপন চন্দ্র সাহা, সাবেক পৌর কাউন্সিলর প্রবির কুমার ফটিক সাহা, বিশিষ্ট ব্যবসায়ী প্রাণ কৃষ্ণ সাহা, শ্যামল সাহা, বাবুল চন্দ্র সাহা, জাতীয় গীতা পাঠ প্রতিযোগিতা- ২০১৯ এর উপজেলা যুগ্ম আহবায়ক সুখেন্দু রায় চৌধুরী সুন্টি, প্রধান সমন্বয়ক সুজন দাস, সদস্য মিঠুন দাসসহ অন্যান্য অতিথিবৃন্দ এবং প্রতিযোগিতায় অংশ গ্রহণকারী ও তাদের অভিভাবকগণ সহ স্থানীয় গণমাধ্যম কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন ।

 

আমরা নিউজ গুলো করে থাকি সেয়ার করার দায়িত্ব কিন্তু  আপনার।